লকডাউন মেনে চলতে গার্মেন্ট মালিকদের বিকেএমইএ সভাপতির চিঠি

স্টাফ করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৯:১৫ পিএম, ২৪ জুলাই ২০২১ শনিবার

লকডাউন মেনে চলতে গার্মেন্ট মালিকদের বিকেএমইএ সভাপতির চিঠি

লকডাউনে গার্মেন্ট মালিকদের বিধিনিষেধ মেনে চলার আহবান জানিয়েছে মালিকদের চিঠি দিয়েছেন বিকেএমইএ এর সভাপতি এমপি সেলিম ওসমান।

২৪ জুলাই তিনি ওই চিঠি পাঠান।

এতে লেখা হয়, বিগত ১৫ মাস ধরে করোনা মহামারীর দুর্যোগ সারা বিশ্বের পাশাপাশি আমাদের শিল্পসেক্টর ও শিল্প উদ্যোক্তাদের দারুন বিপর্যয়ের মধ্যে ফেলে দিয়েছে। বিশেষ করে যারা ব্যাংক থেকে ঋণ নিয়ে ব্যবসা পরিচালনা করেছেন, তাদের অবস্থা অত্যন্ত শোচনীয়। কিন্তু তারপরেও দেশের স্বার্থে, শিল্পের স্বার্থে ও শ্রমিকদের স্বার্থে আপনারা আপনাদের সর্বস্ব দিয়ে কারখানা চালু রেখেছেন এবং দেশের অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছেন। আপনাদের এই অসাধারণ ত্যাগ নিঃসন্দেহে ধন্যবাদের দাবিদার। আপনার প্রতি তাই আমার অশেষ কৃতজ্ঞতা।

করোনার প্রথম ধাপে লকডাউন চলাকালেও শিল্পকারখানা, ব্যাংকিং সেবা ও আমদানি রপ্তানি কার্যক্রম চালু ছিল। আর এই সুযোগ নিয়ে আমরা শিল্প উদ্যোক্তারা অনেক কষ্ট করে আর্থিক ক্ষতি হবে জেনেও কারখানা চালু রেখে পণ্য রপ্তানি করতে পেরেছি। কিন্তু করোনার ২য় ধাপের বর্তমান ভেরিয়েন্টটি অত্যন্ত মারাত্মক। তাই সরকার বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সাথে আলোচনা করে ২৩ জুলাই থেকে ৫ আগস্ট ২০২১ইং পর্যন্ত কঠোর লকডাউনের পদক্ষেপ নিয়েছে এবং আমাদের শিল্পকারখানাগুলো এই লকডাউনের আওতার বাহিরে নয়। যদিও সংক্ষিপ্ত আকারে ব্যাংকিং ও অন্যান্য আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রমের জন্য বন্দর সংশ্লিষ্ট সেবা প্রতিষ্ঠান খোলা থাকছে, তথাপি দেশের মানুষকে বাঁচাবার জন্য, মহামারী থেকে আমাদের রক্ষা পাওয়ার ক্ষেত্রে এই কঠোর লকডাউন আর্থিক ক্ষতি হবে জেনেও কষ্ট করে হলেও আমাদের মেনে চলতে হবে।

১৪ দিনের এই লকডাউন আপনার রপ্তানি পরিকল্পনায় ব্যাঘাত ঘটালেও ভবিষ্যতে সুন্দরভাবে করোনা মুক্ত পরিবেশে ব্যবসা পরিচালনার জন্য আপনাদের এই ত্যাগটুকু স্বীকার করতেই হবে। এক্ষেত্রে তৃতীয় কোন পক্ষের পরামর্শ গ্রহণ না করে সরকারের নির্দেশনা মোতাবেক লকডাউনকালীন সময়টুকু অতিবাহিত করার জন্য আপনাকে বিশেষভাবে অনুরোধ জানাচ্ছি একইসাথে আপনাদের ধৈর্য্য ও সহযোগিতা একান্ত ভাবে কামনা করছি।

বিগত সময়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও তাঁর সরকার আমাদের প্রণোদনা দিয়ে এ সেক্টর ও উদ্যোক্তাদের বাঁচিয়ে রাখতে সহায়তা করেছেন। বর্তমানে যে কঠিন সময় আমরা অতিবাহিত করছি, তাও সরকারের অবগত। আমরা আশা করছি, এ চলতি লকডাউন শেষ হলে, আমরা মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে পুনরায় প্রণোদনা সহযোগিতার জন্য আবেদন জানাবো। আমি বিশ্বাস করি, বিগত সময়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমাদের জন্য যেভাবে সহযোগিতার হাত প্রসারিত করেছিলেন, তেমনিভাবে তিনি আগামীতেও আমাদের জন্য এভাবে এগিয়ে আসবেন। তাই এই লকডাউন চলাকালীন সময়টুকু সরকারের বিধিনিষেধ পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে মেনে চলার জন্য আপনাদের সকলের প্রতি সবিনয়ে অনুরোধ জানাচ্ছি।


বিভাগ : অর্থনীতি


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও