আমের জুসের কারখানায় সব কেমিক্যাল

তথ্যসূত্র : বাংলাট্রিবিউন। || ১০:৪৭ পিএম, ৯ জুলাই ২০২১ শুক্রবার

আমের জুসের কারখানায় সব কেমিক্যাল

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে সজীব গ্রুপের কারখানাটি জুসের হলেও সেটার ভেতরে কোনও ফল দেখা যায়নি। প্লাস্টিক দানা, বোতল, কর্ক, পলিথিন, কার্টুন, মোবিল ও খাবারের কেমিক্যাল ভর্তি ছিলো নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের সেজান জুসের কারখানাটি। বিভিন্ন ধরনের কেমিক্যাল থাকায় আগুন নেভাতে ফায়ার সার্ভিসের বেগ পেতে হয়েছে। ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা আগুন নেভাতে পানি দেওয়ার পর বিভিন্ন ফ্লোর থেকে কেমিক্যাল ও প্লাস্টিক বর্জ্য বের হতে দেখা গেছে। ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা বলেছেন, এখানে বিভিন্ন কেমিক্যাল ছিলো। সেগুলো আগুনবান্ধব হওয়ায় আগুন তীব্র থেকে আরও তীব্রতর হয়েছে। তথ্যসূত্র : বাংলাট্রিবিউন।

শুক্রবার (৯ জুলাই) ফায়ার সার্ভিসের ডিরেক্টর অব অপারেশন লে. ক. জিল্লুর রহমান বলেছেন, ‘কারখানার ভেতরে অসংখ্য প্লাস্টিকের বোতল, পলিথিন, কেমিক্যালসহ দাহ্য পদার্থ ছিল।’

ফায়ার সার্ভিস কর্মী মোস্তাফিজুর রহমান বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘কারখানার ভেতরে প্লাস্টিকের দানা, পলিথিন, বোতল সব পুড়েছে। কিছু মেশিন ছিল, সেগুলোও পুড়েছে। তবে ভেতরে কোনও ফল দেখিনি। কিছু নুডলস, সেমাই, লাচ্ছি ও জুসের প্যাকেট দেখা গেছে।’

সেজান জুস ‘ম্যাংগো জুস’ বলে বাজারে বিক্রি করে আসছে। তবে কারখানার কোথাও আম বা আমের তরল জুস দেখা যায়নি। ফায়ার সার্ভিস পানি দেওয়ার পর ভবনটির ভেতর থেকে উপচে কেমিক্যাল চারপাশে বের হয়ে আসছে।

কারখানাটিতে গিয়ে দেখা গেছে, ভেতরে ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে বিভিন্ন কেমিক্যালের ড্রাম, কন্টেইনার ও প্লাস্টিকের বোতল। কারখানাটিতে জুস, লাচ্ছি, সেমাইসহ বিভিন্ন পণ্য বোতলজাত ও প্যাকেটিং করা হতো। ভবনটির পঞ্চম ও ষষ্ঠ তলায় ছিল বিভিন্ন কেমিক্যালের গোডাউন।

কারখানার শ্রমিক ও ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা জানান, কারখানাটি তিন শিফটে পরিচালিত হয়। যেখানে কাজ করেন দুই হাজারের বেশি শ্রমিক। কারখানাটিতে জুসের কর্ক, লেভেল প্যাকেটিং’র কাজ করা হয়। বৃহস্পতিবার ৫টায় আগুনের সূত্রপাত ঘটে নিচ তলায়। ভবনটির ছাদ থেকে ২৫ জনকে জীবিত উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিস। তবে জীবন বাঁচাতে গিয়ে অনেক শ্রমিক ভবনের ছাদ ও বিভিন্ন তলা থেকে লাফ দিয়ে আহত হন। ক’জন নিহতও হন, যাদের হাসপাতালে নেওয়ার পর মৃত ঘোষণা করা হয়।


বিভাগ : ফিচার


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও