দুদকের মামলায় পিপি ও স্ত্রীর আগাম জামিন


স্টাফ করেসপনডেন্ট | প্রকাশিত: ০৬:৪৮ পিএম, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১, বৃহস্পতিবার
দুদকের মামলায় পিপি ও স্ত্রীর আগাম জামিন

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) দায়ের করা অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে পৃথক দুই মামলায় জামিন নিয়েছেন নারায়ণগঞ্জ জজ কোর্টের পিপি এসএম ওয়াজেদ আলী খোকন ও তার স্ত্রী সেলিনা ওয়াজেদ মিনু।

২৫ ফেব্রুয়ারী বৃহস্পতিবার দুপুরে নারায়ণগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ আনিসুর রহমানের আদালতে এ দুইজন আত্মসমর্পন করেন। শুনানী শেষে আদালত দুইজনের জামিন মঞ্জুর করেছেন।

এবিষয়ে পিপি এসএম ওয়াজেদ আলী খোকন জানান, তদন্তাধীন মামলার বিষয়ে কোন মন্তব্য করতে পারবোনা।

দুদকের পক্ষে আইনজীবী বদিউজ্জামান বলেন, ২৪ ফেব্রুয়ারি পিপি এসএম ওয়াজেদ আলী খোকন ও তার স্ত্রী সেলিনা ওয়াজেদ মিনুর বিরুদ্ধে দুদকের প্রধান কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক রেজাউল করিম বাদী হয়ে অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগ এনে দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয় ঢাকা-১ এ পৃথক দুটি মামলা দায়ের করেন।

অভিযোগে বলা হয়, এসএম ওয়াজেদ আলী খোকন পাবলিক প্রসিকিউটর। নারায়ণগঞ্জ দুর্নীতি দমন কমিশনে দাখিল করা সম্পদ বিবরণীতে তার নিজ নামে ও তার উপর নির্ভরশীল ব্যক্তিদের নামে ৮৫ লাখ ৩২ হাজার ৩৭৫ টাকার সম্পদের তথ্য প্রদর্শন না করে গোপনপূর্বক মিথ্যা ও ভিত্তিহীন তথ্য দেন। তা স্থানান্তর ও রূপান্তরের মাধ্যমে গোপন করা সম্পদসহ মোট ৯৯ লাখ ৪৯ হাজার ৩৫৫ টাকার জ্ঞাত-আয় বহির্ভূত সম্পদ অর্জন করে দখলে রাখায় তার বিরুদ্ধে দুর্নীতি দমন কমিশন আইন, ২০০৪ এর ২৬(২) ও ২৭(১) ধারা এবং মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন, ২০১২ এর ৪(২) ধারার অপরাধ আনা হয়।

খোকনের স্ত্রীর বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলায় বলা হয়েছে, মিসেস সেলিনা ওয়াজেদ মিনুর দুর্নীতি দমন কমিশনে দাখিল করা সম্পদ বিবরণীতে তার নিজ নামে ২৭ লাখ ৩৯ হাজার ১৬১ টাকার সম্পদের তথ্য প্রদর্শন না করে গোপনপূর্বক মিথ্যা ও ভিত্তিহীন তথ্য দিতো। স্থানান্তর ও রূপান্তরের মাধ্যমে উক্ত গোপন করা সম্পদসহ মোট ১ কোটি ১ লাখ ৫৬ হাজার ১৭৪ টাকার জ্ঞাত-আয় বহির্ভূত সম্পদ অর্জন করে দুর্নীতি দমন কমিশন আইন, ২০০৪ এর ২৬(২) ও ২৭(১) ধারা এবং মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন, ২০১২ এর ৪(২) ধারার শাস্তিযোগ্য অপরাধ আনা হয়েছে।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
newsnarayanganj-video
আজকের সবখবর