এত বড় কলিজা


স্টাফ করেসপনডেন্ট | প্রকাশিত: ০৫:৩২ পিএম, ০৬ মার্চ ২০২১, শনিবার
এত বড় কলিজা

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার গোগনগরে চেয়ারম্যান পদে সম্ভাব্য প্রার্থী জসিমউদ্দিনের উদ্দেশ্যে এমপি সেলিম ওসমান বলেছেন, গোগনগরে নওশেদ আলী মারা গেছেন। ওই জায়গায় আমি জসিমউদ্দিনকে নির্বাচন করতে অনুরোধ করেছি। তবে সব জায়গায়ই বান্দর থাকে, শয়তান থাকে। এক আলীর পরিবর্তে আরেক আলী হবে এটা হয়না। আমি ওই এলাকায় মিটিং করেছি। আমি জনগনের কাছে জসিমউদ্দিনকে চেয়েছি। আমি তাকে নমিনেশন দেইনি। আমি মিটিং করে বেরিয়ে আসার পরে কিছু ছেচকা ছোকরা নিয়ে উনি মিটিং করলেন মানিনা মানবো না। তোমার যদি এতোবড় কলিজা ছিল তাহলে তুমি জনসভার মধ্যে এসে বললে না কেন? এরপর দেখলাম উনি আমার এবং আমার ছোট ভাইয়ের ছবি দিয়ে নির্বাচনী পোস্টার লাগিয়েছেন। এর আগে আমার ছবি দিয়ে পোস্টার করায় আমার অনুমতি ছাড়া আমি কিন্তু তার বিরুদ্ধে মামলা করেছি। তার সাথে তিনজন মেম্বার সহযোগীতা করছেন। যার বাড়ির একটা বউ জাপানে একটা ফিলিপাইনে আরেকটা বলে নারায়ণগঞ্জে। বিশাল বিশাল বিল্ডিং বানাইছেন নারায়ণগঞ্জে এলাকার জন্য ১০টা পয়সা খরচ করেন নাই। উনার ভাইয়ের যে অবদান তার বিনিময়ে উনি আজকে চেয়ারম্যান হওয়ার স্বপ্ন দেখছেন। স্বপ্ন স্বপ্নই থেকে যাবে। এলাকার মানুষ ওটাকে গ্রহণ করবেনা। কারণ ওই এলাকার সাধারণ মানুষ আমাকে ভালবাসে।

শুক্রবার ৫ মার্চ বিকেল সাড়ে ৪টায় নবীগঞ্জের টি-হোসেন গার্ডেনে বন্দর ইউনিয়নবাসীর সাথে উন্নয়ন নিয়ে মত বিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রসঙ্গত নওশেদ আলীর ছোট ভাই ফজর আলী একই ইউনিয়নে নির্বাচনের প্রস্তুতি নিচ্ছেন। তিনি প্রতিনিয়ত জসিমউদ্দিনের পেছনে লেগেছেন।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
newsnarayanganj-video
আজকের সবখবর