১৫ পরিবারের ঘরবাড়ি নদীতে বিলীন, প্রতিবাদে গ্রামবাসীর মানববন্ধন

|| নিউজনারায়ানগঞ্জ২৪.নেট ০১:০১ এএম, ১ জানুয়ারি ২০১৫ বৃহস্পতিবার

১৫ পরিবারের ঘরবাড়ি নদীতে বিলীন, প্রতিবাদে গ্রামবাসীর মানববন্ধন
নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলার অবহেলিত চরাঞ্চল বারদী ইউনিয়নের নুনেরটেক এলাকায় মেঘনা নদীর তীরবর্তী ফসলী জমি ও বাড়িঘরের কাছ থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের প্রতিবাদে মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করা হয়েছে।   শুক্রবার বিকেলে নুনেরটেক এলাকার সবুজবাগ গুচ্ছগ্রামে  ৬ গ্রামের মানুষ একত্রিত হয়ে এ মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করা হয়। এসময় ওই এলাকার কয়েক হাজার নারী পুরুষ অংশগ্রহন করে। গত ৩দিনে ওই এলাকায় অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের ফলে প্রায় ১৫টি পরিবারের বাড়িঘর নদী গর্ভে বিলীন হয়ে যায়।   মানববন্ধন কর্মসূচীতে বক্তব্য রাখেন, সোনারগাঁ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আজহারুল ইসলাম মান্নান, সেলিম হোসেন দিপু, গোলাম হোসেন, ডা. আলী হোসেন, বারদী ইউনিয়ন পরিষদের ৬ন ওয়ার্ড সদস্য জিলানী, সাবেক মেম্বার আব্দুল কাদির, আবুল হাসেম, দেলোয়ার হোসেন, শাহজাহান, নজরুল প্রমুখ।   মানববন্ধন কর্মসূচীতে এলাকাবাসী অভিযোগ করেন, সরকার দলীয় প্রভাবশালী বালু উত্তোলনকারী একটি সিন্ডিকেট মেঘনা নদীর নুনেরটেক, সবুজবাগ, গুচ্ছগ্রাম, টেকপাড়া, চুয়াডাঙ্গা ও রঘুনারচর গ্রাম ঘেঁষে  রাতের আধারে ফসলী জমির মাটি কেটে নিয়ে যাচ্ছে। ফলে শত শত বিঘা ফসলী জমি নদী গর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। প্রশাসনের দপ্তরে একাধিকবার অভিযোগ করলেও স্থানীভাবে কোন সমাধান হয়নি। ঈদের আগের দিন থেকে গত ৩ দিনে ১৫ টি পরিবারের ঘর বাড়িসহ বিশাল এলাকা নদী গর্ভে বিলীন হয়ে গেছে।   মানববন্ধন কর্মসূচীতে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আজহারুল ইসলাম মান্নান এলাকাবাসীর সাথে এ¥া প্রকাশ করে বলেন, নুনেরটেক বালু মহালে যে হারে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন চলছে। এ অবস্থা চলমান থাকলে সোনারগাঁয়ের মানচিত্র থেকে কয়েকটি গ্রাম মুছে যেতে পারে। আমি উপজেলা চেয়ারম্যান হিসেবে এ এলাকায় যাতে অবৈধ বালু উত্তোলন বন্ধ হয়। এ বিষয়ে এলাকাবাসীকে সর্বাত্মক সহযোগিতা করব।

বিভাগ : মহানগর


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও