বন্দরে ভাড়া নিয়ে বিরোধে ভাড়াটিয়া খুন

বন্দর করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৮:৪৪ পিএম, ২৩ অক্টোবর ২০২০ শুক্রবার

বন্দরে ভাড়া নিয়ে বিরোধে ভাড়াটিয়া খুন

বন্দরে বকেয়া ঘরভাড়া নিয়ে বিরোধের জের ধরে হামলায় ২ সন্তানের জনক ও মাছ বিক্রেতা ফয়েজ মিয়ার (৪২) মৃত্যু ঘটেছ।

২৩ অক্টোবর শুক্রবার সকাল ১০টায় পুরান বন্দর প্রধানবাড়ীস্থ মিছির আলী মিয়ার ভাড়াটিয়া ঘরে এ ঘটনাটি ঘটে।

এ ঘটনায় পুলিশ বাড়িওয়ালা উম্মে কুলসুম (৫৫), ভাড়াটিয়া মহিউদ্দিন (৪২) ও তার স্ত্রী শিরিনা বেগমকে (৩৭) আটক করেছে।

এ ব্যাপারে নিহতের স্ত্রী রোজিনা বেগম বাদী হয়ে বন্দর থানায় হত্যা মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চালাচ্ছে।

নিহত ফয়েজ মিয়ার ভায়রা সোহেল রানা গনমাধ্যমকে জানিয়েছে, মুন্সিগঞ্জ জেলার গজারিয়া থানার চরবলাকি এলাকার মৃত আবুল হোসেন মিয়ার ছেলে ফয়েজ মিয়া ও তার পরিবার দীর্ঘ ৩ বছর ধরে পুরান বন্দর প্রধানবাড়ী এলাকার মিছির আলী মিয়ার বাড়ীতে ভাড়াটিয়া হিসেবে বসবাস করে আসছে।

করোনা জন্য ব্যবসা মন্দ থাকার কারণে ৭ মাসের বকেয়া ঘর ভাড়া জমে যায়। সময় মত ঘর ভাড়া দিতে না পারায় এ নিয়ে গত ২২ অক্টোবর বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বাড়িওয়ালা উম্মেকুলসুমের সাথে ফয়েজ মিয়ার স্ত্রী রোজিনা বেগমের কথা কাটাকাটি হয়।

ওই সময় রোজিনা বেগম বকেয়া ঘর ভাড়া ৭ হাজার টাকার মধ্যে ৪ হাজার টাকা প্রদান করে। তারপরও উম্মেকুলসুম ঘর ভাড়া বিষয়ে অপর ভাড়াটিয়া মহিউদ্দিন ও তার স্ত্রী শিরানা বেগমকে জানায়।

শুক্রবার সকালে ঘর ভাড়াকে কেন্দ্র করে ভাড়াটিয়া মহিউদ্দিন ও মাছ বিক্রেতা ফয়েজ মারামারিতে জড়িয়ে পরে। ওই সময় মহিউদ্দিন ও তার স্ত্রী শিরিনা বেগম মিলে ফয়েজকে এলোপাথারী ভাবে কিলঘুসি মেরে আহত করে। পরে স্থানীয় মুমুর্ষ অবস্থায় ফয়েজকে উদ্ধার করে নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ফয়েজকে মৃত ঘোষনা করে।

বন্দর থানার ওসি ফখরুদ্দীন ভূইয়া জানান, এলাকাবাসী মাধ্যমে সংবাদ পেয়ে থানার কিলো অফিসার এসআই সালেকুজ্জামান দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য লাশ মর্গে প্রেরণ করে। এ ঘটনায় ৩ জনকে আটক করা হয়েছে।


বিভাগ : মহানগর


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও