রূপগঞ্জে হত্যা মামলার আসামিদের হুমকি

রূপগঞ্জ করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৭:১৪ পিএম, ১৩ জানুয়ারি ২০২১ বুধবার

রূপগঞ্জে হত্যা মামলার আসামিদের হুমকি

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলার আধুরিয়া পোরাবো এলাকায় জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রকাশ্যে কুপিয়ে ব্যবসায়ী অভিনাশ সরকারকে হত্যা করা হয়। ওই ঘটনায় নিহতের ভাই সুজন সরকার বাদি হয়ে রূপগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেন। হত্যা মামলা প্রত্যাহার না করলে অভিনাশের মতো মামলার বাদি ও স্বাক্ষীদের হত্যা করার হুমকি দিচ্ছে।

জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে মামলার বাদি সুজন সরকার আরো দুটি সাধারণ ডায়রী করেছেন। মামলার স্বাক্ষী আধুরিয়া পোরাব গ্রামের নরেন্দ্র সরকারের ছেলে ফনু সরকার গত ১১ জানুয়ারি হত্যা মামলার আসামি অনুকুল সরকার, সহদেব সরকার, অর্জুন সরকার, জীবন সরকারের বিরুদ্ধে সাধারণ ডায়রী করেন। তারা গত ২মাস ধরে ফনু সরকারকে চুরির মামলায় ফাসানোসহ হত্যার হুমকি দিচ্ছে।

মামলার বাদি সুজন সরকার জানান, জমি সংক্রান্ত বিরোধে জের ধরে গত বছর ১ এপ্রিল ব্যবসায়ী অভিনাশ সরকারকে একই এলাকার অনুকুল, সহদেব, অর্জুন, জীবন, দিপালী, কালিপদ ভৌমিক, পরিমল সরকার প্রকাশ্যে কুপিয়ে হত্যা করে। আসামি অনুকুল সরকার জেলহাজতে রয়েছে। অন্যরা জামিনে এসে মামলা তুলে নিতে একের পর এক হুমকি দিয়ে আসছে। আসামিরা তাদের ঘরের আসবাবপত্র অন্যত্র সরিয়ে ও বিক্রি করে এখন মামলার বাদি ও স্বাক্ষীদের নামে চুরির মামলা করার চেষ্টা করছে। আসামিদের ভয়ে এখন বাদি ও স্বাক্ষীরা এলাকা ছাড়া রয়েছে।

এদিকে হত্যা মামলার আসামি দিপালী সরকারের বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোনা থাকলেও রহস্যজনক কারণে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করছে না। বাদিপক্ষ আসামিদের গ্রেফতার ও ফাঁসির দাবি জানান।

ফনু সরকারের জিডির তদন্ত কর্মকর্তা এসআই মনির হোসেন জানান, অভিযোগটি তদন্ত চলছে। আসামিরা পলাতক রয়েছে। অনুকুল সরকারের লোকজন দু®কৃতকারী ও হত্যা মামলার আসামি।

রূপগঞ্জ থানার ওসি মাহমুদুল হাসান জানান, অভিনাশ সরকার হত্যার ঘটনায় প্রধান আসামি জেলহাজতে রয়েছে। জামিনে থাকা আসামিদের বিরুদ্ধে একাধিক জিডি হয়েছে। তাদের গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা হবে। ওয়ারেন্টভুক্ত আসামিরা পলাতক আছে। যেকোনো সময় তাদের আইনের আওতায় আনা হবে। তাছাড়া বাদিপক্ষের বিরুদ্ধে দায়ের করা চুরির ঘটনাটি প্রাথমিকভাবে সাজানো বলে প্রমাণিত হয়েছে।



নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও