সিদ্ধিরগঞ্জে মসজিদে উত্তেজনা, আওয়ামী লীগ সভাপতির জিডি

স্টাফ করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৫:৩৯ পিএম, ৯ জানুয়ারি ২০২১ শনিবার

সিদ্ধিরগঞ্জে মসজিদে উত্তেজনা, আওয়ামী লীগ সভাপতির জিডি

সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি মজিবুর রহমানকে মারধরের অভিযোগে থানায় সাধারণ ডাইরী করা হয়েছে। ৮ জানুয়ারী শুক্রবার রাতে সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় এ জিডিটি দায়ের করেন থানা আওয়ামীলীগ সভাপতির মালিকানাধীন মজিব ফ্যাশন লিমিটেড এর হিসাব রক্ষক আনিসুজ্জামান।

জিডিতে বিবাদী করা হয়েছে, মনির হোসেন (৪৯), মফিজুল ইসলাম মজু (৪০) ও মোঃ মুকুলকে। মনির হোসেন নিজেকে পাইনাদী মিজমিজি সিদ্ধিরগঞ্জ কবরস্থান কেন্দ্রীয় জামে মসজিদ কমপ্লেক্সের মোতায়াল্লী এবং মফিজুল ইসলাম মজু একই মসজিদ কমিটির সাধারণ সম্পাদক। অপরদিকে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি মজিবুর রহমান একই মসজিদ কমিটির সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছেন।

থানায় দায়ের করা জিডিতে উল্লেখ করা হয়, বিবাদীদের সাথে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি মজিবুর রহমানের চাচাতো ভাই সাইফুলের সাথে পূর্ব থেকেই জমিজমা নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। উক্ত বিষয়কে কেন্দ্র করে বিবাদীরা মসজিদের সভাপতি সহ কমিটির অন্যান্য সদস্যদের বিরুদ্ধে লোক সমাজে মিথ্যা অপ প্রচার ও মানহানিকর মন্তব্য প্রদান করিয়া আসছে। বিবাদীরা মসজিদ কমিটিকে কোন কিছু না জানিয়ে অনুমতি ব্যতিত মসজিদের মালামাল ক্রয় করে।

গত ১ জানুয়ারী জুমার নামাজের সময় বিবাদীরা মজিবুর রহমানকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে এবং ১নং বিবাদী মনির হোসেন নিজেকে মসজিদের মোতায়াল্লী বলে মিথ্যা পরিচয় দেয়। এছাড়াও ৮ জানুয়ারী শুক্রবার জুমার নামাজের সময় মসজিদ কমিটির সভাপতি মজিবুর রহমানকে জুমার খুতবার পূর্বে মাইকে বক্তব্য দেওয়ার সময় লোকজন নিয়ে পূর্ব বিরোধের জের ধরে ও মসজিদে উপস্থিত মুসল্লিদের অতর্কিত হামলা চালায়। এবং হুমকী ধামকী প্রদর্শন করে।

মসজিদ পরিচালনা কমিটির সাধারণ সম্পাদক হাজী মফিজ উদ্দিন মজু বলেন, পূর্ব করিকল্পিত ভাবে সভাপতি মজিবুর রহমান ৫শতাধিক সমর্থক এন রেখেছিল আমার উপর হামলা করার জন্য। তা আমি আগে বুঝতে পারিনি। জেনারেটর কেনার জন্য মুসুল্লীদের কাছ থেকে টাকা ৪ মাস যাবত সভাপতির পেছনে ঘুরছি কিন্তু তিনি সময় দিচ্ছেন না। এতে মুসুল্লীদের নামাজ আদায়ে চরম সমস্যা হচ্ছে। এভাবে মসজিদে হট্টগোল মেনে নিতে পারছি না।

সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও মসজিদ কমিটির সভাপতি মজিবুর রহমান মসজিদের ভিতরে মারামারির সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, আমাকে মজু ও তার পরিবারের লোকজন চোর বলায় এ বিষয়টি আমি মসজিদে উপস্থাপন করলে এই অপ্রীতিকর ঘটনাটি ঘটে। মজু তার লোকজন নিয়ে আমাকেসহ মুসুল্লীদের উপর এ হামলার ঘটনাটি ঘটায়।

প্রসঙ্গত সিদ্ধিরগঞ্জে মসজিদের জেনারেটর কেনা কেন্দ্র করে তুমুল হট্টগোল ও মারধরের ঘটনা ঘটেছে। ৮ জানুয়ারী শুক্রবার জুমার নামাজের পূর্বে সিদ্ধিরগঞ্জের পুলস্থ পাইনাদী মিজমিজি সিদ্ধিরগঞ্জ কবরস্থান কেন্দ্রীয় জামে মসজিদ কমপ্লেক্সে এ ঘটনাটি ঘটে। এ ঘটনায় মসজিদ পরিচালনা কমিটির সভাপতির সমর্থকদের হাতে লাঞ্ছিত হয়েছে সাধারণ সম্পাদক হাজী মফিজ উদ্দিন মজু।


বিভাগ : ধর্ম


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও