শ্রাবন্তী মুসলমান হয়ে মুনিয়া, করলেন বিয়ে

স্টাফ করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ১১:৩৩ পিএম, ১৫ জুলাই ২০২১ বৃহস্পতিবার

শ্রাবন্তী মুসলমান হয়ে মুনিয়া, করলেন বিয়ে

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ থানার গোবিন্দরপুর গ্রামের শীতল চন্দ্রের মেয়ে শ্রাবন্তী রানী হিন্দু ধর্ম থেকে মুসলিম ধর্মে ধর্মান্তরিত হয়ে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছেন। ইসলাম ধর্মান্তরিত হওয়ার পর তার নাম মুনিয়া আক্তার এবং তার স্বামীর নাম আকরাম হোসেন। আকরাম হোসেন নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ থানার কাজীপাড়া গ্রামের আব্দুর হাইয়ের ছেলে।

নোটারী পাবলিক কার্যালয়ের আইনজীবী অ্যাডভোকেট সুজন সরকারের মাধ্যমে অঙ্গীকারাবদ্ধ হয়ে সম্প্রতি ফতুল্লা থানার আদর্শ চাষাঢ়া জামে মসজিদের ইমামে মাধ্যমে কালেমা পড়ে ইসলাম ধর্মে ধর্মান্তরিত হন।

হলফনামায় মুনিয়া আক্তার উল্লেখ করেন, আমি প্রাপ্ত বয়স্ক এবং সাবালিকা। সিদ্ধান্ত গ্রহণ করার ও ঘোষণা দেয়ার ক্ষমতা আমার রয়েছে। আমার দৃঢ় বিশ্বাস করি সকল ধর্মের চেয়ে ইসলাম ধর্ম সর্বশ্রেষ্ট ধর্ম, সত্য এবং পবিত্র। তাই আমার বিশ্বাস এবং অনুভূতির মাধ্যমে আমি পবিত্র ইসলাম ধর্ম গ্রহণ বাকী জীবন ইসলামী অনুশাসন মেনে জীবন যাপনের সিদ্ধান্ত নেই। সেই সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ফতুল্লা থানার আদর্শ চাষাঢ়া জামে মসজিদের ইমামে মাধ্যমে ইসলাম ধর্মের বাণী পড়ে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করি। একই সাথে আমার পূর্ব নাম শ্রাবন্ত রানী থেকে নতুন নাম মুনিয়া আক্তার রাখা হয়েছে। আমি সম্পূর্ণ স্বেচ্ছায়, স্বজ্ঞানে সুস্থ্য মস্তিস্কে, কারো বিনা প্ররোচনায় হলফের মাধ্যমে পবিত্র ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছি।

এদিকে একই দিনে সোনারগাঁ থানার কাজীপাড়া গ্রামে আব্দুর হাইয়ের ছেলে আকরাম হোসেনের সাথে নোটারী পাবলিক কার্যালয়ের আইনজীবী অ্যাডভোকেট সুজন সরকারের মাধ্যমে অঙ্গীকারাবদ্ধ হয়ে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন মুনিয়া আক্তার।

বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হওয়ার হলফনামায় মুনিয়া আক্তার ও আকরা হোসেন উল্লেখ করেন, আমরা প্রাপ্ত বয়স্ক। আমাদের ভাল মন্দ বুঝার ক্ষমতা রয়েছে আমাদের। আমরা দীর্ঘদিন যাবত একে অপরকে চিনি বুঝি জানি। আমরা একে অপরকে ছাড়া সুখী হতে পারবো না বিধায় ইসলামী শরীয়ত মোতাবেক দুই লক্ষ টাকা দেন মোহর ধার্য্য করে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়লাম। সেই সাথে কাজী অফিসের ভলিয়মের ১৫ নাম্বারের ৫৪ পাতায় ৬ জুন বিবাহ রেজিষ্ট্রি করিলাম।


বিভাগ : ধর্ম


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও