রিকশা চালককে থাপ্পড়ের ভিডিও ভাইরাল

স্টাফ করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ১১:৪১ পিএম, ৮ মে ২০২১ শনিবার

রিকশা চালককে থাপ্পড়ের ভিডিও ভাইরাল

রাজধানী ঢাকায় রিকশা চালককে মারধর করে অজ্ঞান করে দেওয়ার ঘটনায় মারধরকারী সুলতান আহমেদকে গ্রেপ্তারের রেশ কাটতে না কাটতেই নারায়ণগঞ্জে আবারও একজন বৃদ্ধ রিকশা চালককে থাপ্পড় মারলো এক যুবক। এরপর বৃদ্ধের রিকশাও ভাংচুর করে সে।

৬ মে বৃহস্পতিবার সন্ধায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে নারায়ণগঞ্জের অন্যতম জনপ্রিয় ফেসবুক গ্রুপ নারায়ণগঞ্জস্থানে পরশ হোসেন নামে এক ব্যক্তি বৃদ্ধ রিকশা চালককে থাপ্পড় ও রিকশা ভাংচুরের ওই ভিডিও পোস্ট করেন। যা মুহূর্তেই ভাইরাল হয়ে যায়।

পোস্টটিতে পরশ হোসেন লিখেন, “দেওভোগ ভূঁইয়া সুপার মার্কেটের সামনে ৪ মে রাত ৯ টা ৩০ মিনিটে একটি ছেলে বৃদ্ধ বয়সী একটি রিকশা চালককে অনেক মারধোর এবং গালাগালি করে। তার রিকশা সামনের অংশ ভেঙে দেয়। আজ ক্ষমতাশীল কিছু বখাটে ছেলের কারণে আমাদের দেশের এই অবস্থা। নারায়ণগঞ্জ দেওভোগ। ভিডিও কালেক্টেড।”

ভিডিওটিতে দেখা যায়, রাস্তার পাশে রিকশাটি থামানোর পর পেছন থেকে রিকশার পাশে এসে দাঁড়ায় একটি মোটর সাইকেল। মোটর সাইকেলটি একটি যুবক চালাচ্ছিল। ওই যবিক মোটর সাইকেল থেকে নেমে রিকাশা চালকের সঙ্গে বাকবিত-া শুরু করে। এক পর্যায়ে রিকশায় একটি লাথি দিয়ে বৃদ্ধ রিকশা চালকের গালে থাপ্পড় দেয় যুবক। এসময় বৃদ্ধের মাথায় থাকা টুপি পড়ে যাওয়ার সময় বৃদ্ধ লোকটি টুপি ধরে ফেলেন।

এরপর রিকশায় আরও একাধীকবার লাথি মারে। রিকশার সামনের লাইট ও মিটার হাত দিয়ে টেনে ছিড়ে ওইগুলো বৃদ্ধ রিকশা চালকের দিকে ছুড়ে মারে। এরপর আরও একাধীকবার বৃদ্ধ রিকশা চালককে মারধরের জন্য হাত বাড়ায় সে। পরে ঘটনাস্থলে স্থানীয়রা জড়ো হয়ে ওই যুবককে আটকায়। এরপর মোটর সাইকেলে চড়ে চলে যায় সে।

ভিডিওটি ফেসবুক থেকে সংগ্রহ করে নারায়ণগঞ্জের অন্যতম পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল ‘নিউজ নারায়ণগঞ্জ এর ফেসবুক পেইজে আপলোড করা হয়। এর কিছুক্ষণ পর নারায়ণগঞ্জস্থান ফেসবুক গ্রুপে সৌরভ ভূঁইয়া নামে আরেক ব্যক্তি পায়ে ব্যান্ডেজ নিয়ে বিছানায় শুয়ে থাকা একটি ছবি সহ ওই ঘটনা নিয়ে পোস্ট করেন। কিন্তু পোস্টটিতে ওই যুবকের মুখ দেখা যাচ্ছিল না।

ওই পোস্টটিতে তিনি লিখেন, “সময়ের পরিবর্তনে, যুগের হাওয়ায় এদেশের পত্রিকা/অনলাইনগুলা যদি কোনোদিন পর্ণ সাইট খুলে বসে তাহলে অবাক হবো না। যদিও এখনই কিছু কিছু অনলাইন অলরেডি চটি সাইট হয়ে বসে আছে।

নিউজ নারায়ণগঞ্জ আজকে একটা নিউজ করছে ভিডিও সহ। টাইটেল এবার নারায়ণগঞ্জে বৃদ্ধ রিকশা চালককে মারধর ও রিকশা ভাংচুর।’

তারা কি বলতে পারবে ঠিক মত মিনিট থেকে কত মিনিটে ভাংচুরের দৃশ্য টা আছে? মারধর বলতে যা বুঝায় সেটাই বা কতখানি! এটা ঠিক যে চরম মাত্রায় বেয়াদবি করা হয়েছে। একজন বৃদ্ধ বয়সের লোক যতই অপরাধ করুক তার সাথে এমন ব্যবহার কোনো ভাবেই কাম্য না। এর জন্য ছেলেটার শাস্তি পাওয়াও উচিত।

কিন্তু একটা দায়িত্বশীল অনলাইন কোনো ধরণের সোর্স ছাড়া, ঘটনার পুরো বিবরণ ছাড়াই একটা ভিডিও এমন টাইটেলসহ আপ করে দিলো। কিভাবে সম্ভব। স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে ঢাকার ঘটনার সাথে এটাকে মিলিয়ে ভিউ বাড়ানোর ধান্ধা!

অথচ চিন্তা করলোনা তাদের এই ভিডিওর কারণে ছেলেটার পরিবারে কি ধরণের এফেক্ট হতে পারে। পুলিশের ভয়ে এখন সে বাড়িছাড়া।

মূল ঘটনা হলো ছেলেটা বাইক চালাচ্ছিল। অটোরিকশা ওভারটেক করে পাশ কাটিয়ে যাওয়ার সময় ওর পায়ের সাথে লাগিয়ে যায়। এতে করে প্রচুর ব্যাথা পায় এবং আহত হয়। হুট করে ব্যাথা পাওয়ায় কিছুটা রেগে গিয়ে বৃদ্ধলোকটির সাথে বাজে ব্যবহার করে। আমি আবারো বলছি এটা কোনোভাবেই ঠিক কাজ হয়নি।

কিন্তু এই যে ফেসবুক বট্রায়ালের মুখোমুখি হতে হচ্ছে এই বয়সে তাতে করে ওর এবং পরিবারের মানুষিক যে অবস্থা সেটা কি আমরা চিন্তা করতে পারি? একটা দায়িত্বশীল অনলাইনও বা কিভাবে পুরো ঘটনার অনুসন্ধান না করে শুধু মাত্র ফেসবুকে ভাইরাল বলে একটা ভিডিওতে আরো কিছু মশলা যোগ করে আপলোড করতে পারে?

ছেলেটির আহত অবস্থার ছবি সাথে যুক্ত করে দেওয়া হলো।”

নারায়ণগঞ্জস্থান ফেসবুক গ্রুপে পোস্ট করার পর ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েন তিনি। অনেকেই কমেন্টে লিখেন, ‘মারলে দোষ না। নিউজ করলে দোষ।’

সমালোচনার মুখে পরবর্তিতে নারায়ণগঞ্জস্থানের পোস্টটি আর পাওয়া যায়নি।

রিকশা চালককে থাপ্পড় ও রিকশা ভাংচুরের ঘটনা প্রসঙ্গে নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশের উপপরিদর্শক হাফিজুর রহমান নিউজ নারায়ণগঞ্জকে বলেন, ‘এ বিষয়ে খতিয়ে দেখা হচ্ছে।’



নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও