আন্দোলনে আইভীকে দমানো যাবেনা : ময়না

স্টাফ করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ১০:১৫ পিএম, ১৪ ডিসেম্বর ২০২০ সোমবার

আন্দোলনে আইভীকে দমানো যাবেনা : ময়না

সাবেক কমিশনার এবং মহানগর বিএনপির মহিলা বিষয়ক সম্পাদক দিলারা মাসুদ ময়না বলেন, উন্নয়নের স্বার্থে ভাষ্কর্য ইস্যুতে আমরা কোন আপত্তি করছিনা। আমরা চাই ছোট ছোট ইস্যুগুলো নিয়ে চিন্তা করার এখন সুযোগ নেই। এসব থেকে আমাদের বের হয়ে আসতে হবে। এসব করে দেশকে পিছিয়ে দেয়া যাবেনা। তবে হে হারামকে হারাম বলতে হবে। ইসলাম অনুাযায়ী ভাষ্কর্যকে হারাম বলা হয়েছে।

১৩ ডিসেম্বর রাতে নিউজ নারায়ণগঞ্জের লাইভ টকশো ‘নারায়ণগঞ্জ কথন’ অনুষ্ঠানে সমসাময়িক রাজনীতিক নানা ইস্যুতে তিনি এ কথা বলেন। আরিফ হোসাইন কনক এর সঞ্চালনায় অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ মহানগর আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট মাহমুদা মালা।

জিউস পুকুর ইস্যুতে ময়না আরো বলেন, এটা একটা নির্বাচনী ইস্যু। প্রকৃতপক্ষে এটা নিয়ে কিছু করতে চাইলে নির্বাচন নিয়ে এই অভিযোগ না তুলে মেয়রের সাথে সরাসরি কথা বলা উচিত। এভাবে রাস্তায় নেমে আন্দোলন প্রতিবাদ করে মেয়র আইভীকে দমানো যাবেনা। বরং তার সাথে কথা বলে এর সমাধা করা উচিত। যখনই নির্বাচন আসে এই বিষয়টা কেউ উষ্কে দেয়। আমরা দল ও আওয়ামীলীগের একটা অংশ সেটা লুফে নেয়। জিউস পুকুর ইস্যুতে আসন্ন নাসিক নির্বাচনের আগে বিএনপি আন্দোলনে নামলেও আমি ব্যক্তিগতভাবে আন্দোলন করবোনা। এমনকি দল আন্দোলনে নামলে আমি নেতৃবৃন্দদের বুঝাতে চেষ্টা করবো।

দলের দ্বন্দ্ব কোন্দল ইস্যুতে তিনি বলেন, আমি আজকের এই অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে আহবান করতে চাই, আমি সাখাওয়াত হোসেন খান সহ দলের নেতৃবৃন্দরা যারা দ্বন্দ্ব বিভক্তিতে রয়েছে সব কিছু ভুলে দলের স্বার্থে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করুন। দলকে শক্তিশালী করে তুলুন। এখন দ্বন্দ্ব কোন্দালের সময় নয়।

নারায়ণগঞ্জ মহানগর আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট মাহমুদা মালা বলেছেন, জিউস পুকুর ইস্যুতে দুই পক্ষ দুই রকম বক্তব্য দিচ্ছেন। এক পক্ষ বলছেন, মেয়র আইভী উন্নয়ন করেননি। অন্যপক্ষ বলছেন, আইভী উন্নয়ন করেছেন। আমি সে তর্কে যাবোনা। তবে সিটি করপোরেশনের মেয়র যদি উন্নয়ন না করে থাকে এটা সরকারের ব্যর্থতা। যেখানে সুশাসন নাই সেখানে জাইকা ঋণ দেয় না। আমাদের মাননীয় মেয়র অবশ্যই ধন্যবাদ পাবেন তিনি অনেক উন্নয়ন করেছেন। আমি নারী হিসেবে গর্ববোধ করি। যে কজন মেয়র আছেন তার মধ্যে তিনি নারী মেয়র। আর জাইকা প্রধানমন্ত্রীর উপর আস্থা রেখে এখানে এসেছে।

জিউস পুকুর ইস্যুতে তিনি বলেন, মেয়র আইভী যদি এর সাথে জড়িত না থাকে তা প্রমাণ করার দায়িত্ব তার। তবে তিনি পুকুরটি রক্ষণাবেক্ষণ করে ঘাট বাধাই করে দিতে পারেন।

মেয়র আইভীকে টেনে হিচড়ে নামানো হবে - চন্দনশীলের বক্তব্য সম্পর্কে মালা বলেন, নারী নেত্রী নয় যে কোন নেতৃবৃন্দের বিরুদ্ধে এরকম বক্তব্য দেয়া ধৃষ্টতার সামিল। আমি হয় বলতো তার সহবোধ বা ভাষাজ্ঞান কম। নয়তো বলবো তিনি খুব অতি উত্তেজিত ছিলেন। এটা কখনোই বলা ঠিক না। আইভী একজন প্রভাবশালী মেয়র। আর আমি জেলা পরিষদের সাধারণ একজন সদস্য। তারপর তিনি আমাকে টেনে হিচড়ে চেয়ার থেকে নামাতে পারেনা। এগুলো খুবই অশালীন বক্তব্য। আমার মনে হয় বক্তব্য দেয়ার ক্ষেত্রে একটু সংযত হয়ে কথা বলা উচিত।


বিভাগ : টক শো


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও